শিরোনাম:
ভোলা, মঙ্গলবার, ২৭ সেপ্টেম্বর ২০২২, ১১ আশ্বিন ১৪২৯

Bholabani
বুধবার ● ১৪ সেপ্টেম্বর ২০২২
প্রথম পাতা » এক্সক্লুসিভ » যে কোন সংকটে মানবসেবায় ঝাঁপিয়ে পড়েন শাহপরান জয়
প্রথম পাতা » এক্সক্লুসিভ » যে কোন সংকটে মানবসেবায় ঝাঁপিয়ে পড়েন শাহপরান জয়
১০৬ বার পঠিত
বুধবার ● ১৪ সেপ্টেম্বর ২০২২
Decrease Font Size Increase Font Size Email this Article Print Friendly Version

যে কোন সংকটে মানবসেবায় ঝাঁপিয়ে পড়েন শাহপরান জয়

নিজস্ব প্রতিনিধি।।ভোলাবাণী॥

---

মোঃ শাহ পরান জয় ঢাকার সিটি ইউনিভার্সিটি থেকে কম্পিউটার সাইন্স ইঞ্জিনিয়ারিং পাশ করে একটি বেসরকারি প্রতিষ্ঠানে চাকরি করছেন। মা একটি স্কুলের সহকারী শিক্ষিকা ও বাবা একজন ব্যবসায়ী। যে কোন সংকটে মানবসেবায় ঝাঁপিয়ে পড়েন জয়। জয় অসহায় মানুষের পাশের দাড়িয়ে সযোগিতার হাত বাড়িয়ে দেন।শাহ পরান জয় ভোলার চরফ্যাসন উপজেলায় বিভিন্ন অসহায় ও হতদরিদ্র মানুষকে ঘর নির্মান এবং অর্থ দান করেছেন। সিলেটের  সুনামগঞ্জে বন্যার্ত অসহায় মানুষের মাঝে ত্রান ও আর্থিক সহযোগীতা করে ইতোমধ্যে সকল মহালের প্রসংশা কুড়িয়েছেন।

শাহ পরান জয় ভোলার চরফ্যাসন উপজেলার দুলারহাট থানাধীন নুরাবাদ ইউনিয়ন ৩নং ওয়ার্ডের বাসিন্দা মোঃ সফিউল্লাহ ও বিবি খাদিজার পুত্র। শাহ পরান জয়ের পরিবারের সদস্য সংখ্যা ৫জন। এক বোন ও দুই ভাইয়ের মধ্যে জয় দ্বিতীয়।

ছোট বেলা থেকে জয় সামাজিক ও স্বেচ্ছাসেবী কাজ করেন। তবে জয়ের কাজে বিশেষ কিছু ভিন্নতা রয়েছে। জয় “আসুন মোঃ শাহপরান জয়ের সাথে সুখ ছড়িয়ে দেই” একটি স্বেচ্ছাসেবী সংগঠনের মাধ্যমে বিভিন্ন কাজে নেতৃত্ব দিয়ে মানবসেবামূলক কাজ করছেন।

---

মোঃ শাহপরান জয় জানান, ছোটবেলা থেকেই মানুষের দুঃখে আমার মন কাঁদে। যখনই একটু সুযোগ পাই এক গ্লাস পানি দিয়ে হলেও অসহায় মানষুকে সেবা করার চেষ্টা করি। এখনও নিজের কাজের পাশপাশি যেটুকু সময় পাই সেই সময় মানবসেবামূলক কাজ করার চেষ্টা করি। আমার সঙ্গে মানবিক বোধ সম্পন্ন অনেক যুবক যুক্ত হয়েছে। তাদের নিয়ে বিভিন্ন কার্যক্রম পরিচালনা করি। বিভিন্ন দুর্যোগে ত্রাণ সহায়তা কিংবা শীতের সময় শীতবস্ত্র বিতরণ করেছি। অসহায় মানুষগুলোকে পুনর্বাসন করার চেষ্টা করছি। এজন্য আমি সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যমকে ব্যবহার করছি।তিনি আরো জানান, সম্প্রতি বিডি২৪লাইভ ও জাতীয় দৈনিক নয়া শতাব্দীতে “ক্যান্সারে আক্রান্ত মহিন বাঁচতে চায়” এই শিরোনামে একটি সংবাদ প্রকাশ করা হয়। সংবাদটি আমার নজরে আসে। তারপর আমি আমার স্বেচ্ছাসেবী সংগঠনের পক্ষ থেকে মহিনের চিকিৎসার সকল খরচের দায়িত্ব নেই। আমরা এলাকার অসহায় মানুষকে আর্থিক সহযোগীতা করেছি তারা সেই টাকা দিয়ে শাকসবজি বিক্রি করছেন। এছাড়া অসহায় নারীদের পূনর্বাসনের জন্য সেলাই মেশিন বিতরণ করছি। যাতে বাড়িতে বসেই তারা দৈনন্দিন আয় করে সংসার চালাতে পারে।

---

চরফ্যাসন উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা আল নোমান জানান, শাহপরান জয় যে কাজগুলো করছেন তা মানবসেবামূলক কাজ। অসহায় মানুষের স্বেচ্ছাসেবক হয়ে কাজ করার জন্য শাহপরান জয়ের মতো সমাজের অন্যান্য যুবকদেরকে আহবান জানান।





আর্কাইভ

পাঠকের মন্তব্য

(মতামতের জন্যে সম্পাদক দায়ী নয়।)
চরফ্যাশনে দেশী হাঁসের কালো ডিম নিয়ে এলাকায় চাঞ্চল্যে
যে কোন সংকটে মানবসেবায় ঝাঁপিয়ে পড়েন শাহপরান জয়
যৌনতায় সুখ পেলই বিয়ে হয় যেখানে
তজুমদ্দিনে টেকশই বেড়িবাঁধ নির্মাণ,অপরূপ সৌন্দর্যের হাতছানি।
ঘাটে ভিড়ছে না লঞ্চ, ভোগান্তিতে তজুমদ্দিনের ব্যবসায়ী ও লক্ষাধিক মানুষ।
ভোলায় শ্বশুর বাড়িতে স্বামীর উপর স্ত্রী পক্ষের হামলায় আহত-৩
ঈদের রেসিপি: মচমচে ভুঁড়ি ভুনা
গরুর মাংস ফ্রিজ ছাড়া যেভাবে সংরক্ষণ করবেন
বিশ্ববাজারে কমেছে স্বর্ণের দাম
আবার এসেছে আষাঢ়